সীতাকুণ্ড ট্রাজেডি : বুয়েট অধ্যাপকের নেতৃত্বে কমিটি গঠনের নির্দেশ

ছবি: সংগৃহীত
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডের বিএম কনটেইনার ডিপোতে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনার প্রকৃত কারণ অনুসন্ধান ও দায়ীদের চিহ্নিত করতে বুয়েটের কেমিক্যাল বিভাগের একজন অধ্যাপকের নেতৃত্বে কমিটি গঠনের নির্দেশ দিয়েছেন হাইকোর্ট। জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ বিভাগের সচিবকে এই নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এছাড়া কমিটিকে তিন মাসের মধ্যে আদালতে প্রতিবেদন দাখিল করতে বলা হয়েছে।

বিচারপতি মো. মজিবুর রহমান মিয়া ও বিচারপতি কাজী মো. ইজারুল হক আকন্দ সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ বুধবার রুলসহ এই আদেশ দেন। রুলে সীতাকুণ্ডে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় নিহতদের পরিবার ও আহতদের পর্যাপ্ত ক্ষতিপূরণ কেন দেওয়া হবে না, তাও জানতে চাওয়া হয়েছে। আগামী চার সপ্তাহের মধ্যে স্বরাষ্ট্র সচিব, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ সচিব, শিল্প সচিব, বাণিজ্য সচিব, ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের মহাপরিচালক, চট্টগ্রামের জেলা প্রশাসক, স্মার্ট গ্রুপের চেয়ারম্যান ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক, বিএম কনটেইনার বিডি লিমিটের ব্যবস্থাপনা পরিচালকসহ ২০ জনকে এই রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে। আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার হুমায়ন কবির পল্লব।

এর আগে গত ২৯ জুন সীতাকুণ্ডে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা তদন্তের নির্দেশনা চেয়ে হাইকোর্টে রিট দায়ের করা হয়। এছাড়া নিহতদের প্রত্যেক পরিবারকে দুই কোটি টাকা এবং আহতদের প্রত্যেককে ৫০ লাখ টাকা করে দেওয়ারও নির্দেশনা চাওয়া হয়েছে। ল অ্যান্ড লাইফ ফাউন্ডেশন ট্রাস্ট এবং সিসিবি ফাউন্ডেশনের পক্ষে সুপ্রিম কোর্টের তিন আইনজীবী ব্যারিস্টার হুমায়ন কবির পল্লব, ইশরাত হাসান ও জামিউল হক ফয়সাল রিটটি দায়ের করেন।

গত ৪ জুন চট্টগ্রাম শহর থেকে ৩০ কিলোমিটার দূরে সীতাকুণ্ডের কদমরসুল এলাকায় বিএম কনটেইনার ডিপোতে ভয়াবহ আগুনের ঘটনা ঘটে। এতে প্রায় ৫০ জনের মৃত্যু হয়, আহত হন শতাধিক।