রাউজানে ধান মাড়াই কলে চাপা পড়ে দিনমজুরের মৃত্যু

রাউজানে ধান মাড়াই কলে চাপা পড়ে দিনমজুরের মৃত্যু।
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

রাউজান প্রতিনিধি: চট্টগ্রামের রাউজান ধান মাড়াই কলের চাপা পড়ে  সুমন (২৫) নামের একজন দিনমজুরের মৃত্যু হয়েছে।

নিহত সুমন নেত্রকোনা জেলার কলমাকান্দা উপজেলার কইলাটি ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের কাকুরিয়া গ্রামের মৃত মুহাম্মদ ফরিদের ছেলে।

৩০ নভেম্বর (বুধবার) সকালে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধিন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

এই ঘটনায় আরো তিন দিনমজুর গুরুতর আহত অবস্থায় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধিন রয়েছেন। আহতরা হলেন নেত্রকোনা উপজেলা কলমাকান্দা ইউনিয়নের আজর আলী তালুকদারের ছেলে মামুন(২২), আব্দুল হেকিমের ছেলে রিদয়(২২), আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে মুহাম্মদ আলী রাজ(১৭)।

গত মঙ্গলবার রাত ২ টার দিকে হলদিয়া ভিলেজ সড়কের গর্জনিয়া মাদ্রাসার দক্ষিণ পাশে রাশেদের বিল্ডিংয়ের সম্মুখ মোড়ে এই মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটে।

জানা গেছে, রাউজান উপজেলার উত্তর হলদিয়ায় ধান মড়াই কাজ শেষে চালকসহ পাঁচজন দিনমজুর গাড়ি যোগে মাড়াই কল নিয়ে সর্তাব্রিজ সংলগ্ন মুহাম্মদিয়া ক্লাবের পাশে বাসায় ফিরছিলেন। পথিমধ্যে গাড়িটি উল্টে গেলে মাড়াই কলের চাপা পড়েন ৪ দিনমজুর। এদের মধ্যে  সুমনের কোমর থেকে পা পর্যন্ত মাড়াই কলের গরম পানিতে পুড়ে যায় এবং দু পা গাড়ির চাপে ভেঙ্গে যায়।

গুরুতর আহত অবস্থায় স্থানীয়রা তাদের উদ্ধার করে প্রথমে জেকে মেমোরিয়াল হাসপাতালে প্রেরণ করেন। সেখানে তাদের অবস্থার অবনতি হলে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। সেখানে চিকিৎসাধিন অবস্থায় মঙ্গলবার সকালে সুমনের মৃত্যু হয়।

রাউজান থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুল্লাহ আল হারুন বলেন, এই রকম কোন তথ্য আমরা এখনও পায় নি।

হলদিয়া ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম বলেন, রাতে ধান মাড়াই কলের গাড়ি উল্টে চারজন দিনমজুর আহত হয়েছিলেন।  এদের মধ্যে একজন চিকিৎসাধিন অবস্থায় মারা গেছে বলে শুনেছি। এই ব্যাপারে স্থানীয় ইউপি সদস্যের মাধ্যমে চিকদাইর পুলিশ ফাঁড়িকে জানানো হয়েছিল।

জানা যায়, তারা গত ১৫ দিন আগে জনৈক আবুল কালাম মাঝি মাধ্যমে ধান মড়াই কাজে যোগ দিয়েছিলেন। আবুল কালামের ৩ টি গাড়িতে নেত্রকোনা জেলার একই এলাকার ২০জন শ্রমিক কাজ করে।