মঈন উদ্দিন খান বাদলের ৩য় মৃত্যুবার্ষিকী আজ

মঈন উদ্দিন খান বাদলের ৩য় মৃত্যুবার্ষিকী আজ।
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

বোয়ালখালী  প্রতিনিধি: বর্ষীয়ান জাসদ নেতা ও চট্টগ্রাম ৮ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মইন উদ্দীন খান বাদলের তৃতীয় মৃত্যুবার্ষিকী আজ।

২০১৯ সালের ৭ নভেম্বর এই দিনে ভারতের বেঙ্গালুরুর নারায়ণ হাসপাতালে হৃদরোগে আক্রান্ত হয়ে মারা যান তিনি।

১৯৫২ সালের ২১ ফেব্রুয়ারি চট্টগ্রামের বোয়ালখালী উপজেলার সারোয়াতলী গ্রামে জন্ম গ্রহন করেন তিনি। তার পিতা আহমদ উল্লাহ খান ও মা যতুমা খাতুন।

মইন উদ্দীন খান বাদলের মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে তার পরিবার ও বাংলাদেশ জাসদসহ বিভিন্ন সংগঠন আজ নানা কর্মসূচি পালন করবে। এর মধ্যে রয়েছে বোয়ালখালী উপজেলার সারোয়াতলীতে প্রয়াত সংসদের কবরে শ্রদ্ধা নিবেদন, খতমে কোরআন, দোয়া মাহফিল, স্মরণসভা প্রভৃতি।

বাদল ৬০ এর দশকে ছাত্রলীগের সাথে যুক্ত ছিলেন। ১৯৭১ সালে ভারতে প্রশিক্ষণ নেন এবং মুক্তিযুদ্ধে যোগ দেন। চট্টগ্রাম বন্দরে অস্ত্র বোঝাই জাহাজ সোয়াত থেকে অস্ত্র খালাস ও প্রতিরোধের অন্যতম নেতৃত্বদাতা তিনি। মুক্তিযুদ্ধের পর জাসদ হয়ে বাসদ ও পরে আবারো জাসদে যোগ দেন। ১২ মার্চ ২০১৬ সালে জাসদের জাতীয় কাউন্সিলে আবার দুই ভাগ হয়। হাসানুল হক ইনুর নেতৃত্বাধীন অংশটি ইসির স্বীকৃতি পায়। বাংলাদেশ জাসদ নামে আলাদা দলের অংশটি স্বীকৃতি পায় নাই অংশের কার্যকরী সভাপতির দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন মইন উদ্দীন খান বাদল।১৪ দল গঠনেও তার ভূমিকা ছিল। ২০০৮ সালের নবম জাতীয় সংসদে চট্টগ্রাম-৭ আসন থেকে সাংসদ হিসেবে নির্বাচিত হয় এরপর ২০১৪ সালের দশম ও ২০১৮ সালের একাদশ জাতীয় সংসদে তিনি বোয়ালখালী-চান্দগাঁও) চট্টগ্রাম-৮ আসন থেকে সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হন।

মুক্তিযুদ্ধ পরবর্তী সময়ে বাদল সমাজতান্ত্রিক রাজনীতির প্রতি আকৃষ্ট হন। জাসদ, বাসদ হয়ে পুনরায় জাসদে আসেন। আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে ১৪ দল গঠনেও বাদলের ভূমিকা ছিল।

মঈন উদ্দীন খান বাদল বোয়ালখালী উপজেলা জাসদের সভাপতি ছিলেন। তিনি চট্টগ্রাম-৮ আসনে তিন বার নির্বাচিত সংসদ সদস্য। জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের-(জাসদ) একাংশের কার্যকরী সভাপতি ছিলেন মইন উদ্দীন খান বাদল।

সংসদে অনলবর্ষী বক্তা হিসেবে খ্যাত মইন উদ্দীন খান বাদল একাদশ জাতীয় সংসদের দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয় এবং মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় কমিটির সদস্য ছিলেন।