ফেনীতে সাংবাদিককে কোমড়ে রশি বেঁধে আদালতে তোলার প্রতিবাদে মানববন্ধন

: ফেনীর বিতর্কিত সাবেক পুলিশ সুপার জাহাঙ্গীর আলম সরকারের নির্দেশে পুলিশের দেয়া মামলায় এসএম ইউসুফ আলী নামে এক সাংবাদিককে গ্রেফতার
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

ফেনী প্রতিনিধি: ফেনীর বিতর্কিত সাবেক পুলিশ সুপার জাহাঙ্গীর আলম সরকারের নির্দেশে পুলিশের দেয়া মামলায় এসএম ইউসুফ আলী নামে এক সাংবাদিককে গ্রেফতার করে কোমরে রশি বেঁধে আদালতে তোলার প্রতিবাদে ফেনীতে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচী পালন করেছে ফেনীতে কর্মরত সাংবাদিকরা।

বুধবার (২৩ নভেম্বর) ফেনী শহরের ট্রাংক রোড়ে আয়োজিত মানববন্ধনে ফেনীর পেশাদার সাংবাদিকরা পুলিশের দাগনভূঞাঁ থানার ওসি হাসান ইমামসহ অভিযুক্ত সকল পুলিশের প্রত্যাহার দাবী করে। ২৪ ঘন্টার মধ্যে ওসিকে প্রত্যাহার করা না হলে আরও কঠোর আন্দোলনের হুশিয়ারী উচ্চারণ করেছে সাংবাদিকরা।

এ সময় পেশাদার সাংবাদিকরা আরও বলেন, ২৪ ঘন্টার মধ্যে যদি অভিযুক্ত পুলিশদের প্রত্যাহার করা না হয় তাহলে পুলিশের সকল ধরনের সংবাদ বর্জন করবে সাংবাদিকরা।

প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন, জেলার জেষ্ঠ সাংবাদিক আবু তাহের, শাহজালাল রতন, মোহাম্মদ আবু তাহের ভূঞাঁ, মোহাম্মদ শাহাদাত হোসেন, আবদুর রহিম। এছাড়াও বক্তব্য রাখেন আতিয়ার সজল, আরিফুর রহমান, দিদারুল আলমসহ জেলার কর্মরত সাংবাদিকরা।

আদালত সূত্র জানায়, ইউসুফ আলীকে বিশেষ ক্ষমতা আইনের একটি মামলায় পুলিশ গ্রেফতার করে গতকাল  আদালতের মাধ্যমে জেল-হাজতে প্রেরণ করে। গ্রেফতার ইউসুফ দৈনিক অধিকার এর ফেনী ব্যুরো চীফ ও অনলাইন পোর্টাল ফেনী রিপোর্ট এর সম্পাদক এবং দাগনভূঞা উপজেলার পূর্বচন্দ্রপুর ইউনিয়নের গজারিয়া গ্রামের বাসিন্দা

তার মামলার কৌসুলী এম, শাহজাহান সাজু জানান, ইউসুফ আলী ২০১৯ সালের আলোচিত নুসরাত হত্যাকান্ডের কর্তব্যে অবহেলার দায়ে প্রত্যাহার হওয়া পুলিশ সুপার এসএম জাহাঙ্গীর আলম সরকারের রোষানলের শিকার। ওইসময়ে গণমাধ্যমে জাহাঙ্গীর আলম ব্যাপক সমালোচিত হয়ে ফেনী থেকে প্রত্যাহার হয়ে পুলিশ সদর দপ্তরে অদ্যাবধি সংযুক্ত রয়েছেন। ফেনী থেকে যাওয়ার আগে তিনি জেদ মিটাতে ৪ জন সাংবাদিককে জেলার বিভিন্ন থানায় বেশ কিছু মামলার চার্জশীটে যুক্ত করে দেন। এসব মামলার এজাহারে তাদের কারোই নাম ছিল না। পরবর্তীতে সবকটি মামলায় তারা জামিন লাভ করে আদালতে হাজিরা দিয়ে আসছিলেন। ছাগলনাইয়া থানায় দায়েরকৃত একটি মামলায় ভুলক্রমে হাজিরা দিতে না পারায় ইউসুফ আলীর জামিন বাতিল হয়। পুলিশ সোমবার রাত দেড়টার দিকে তাকে ঘুম থেকে তুলে গ্রেফতার করে থানায় নিয়ে আসে।

এদিকে ইউসুফ আলীর গ্রেফতারের খবরে ফেনীতে গণমাধ্যম কর্মী ও সচেতন মহলে তীব্র ক্ষোভ ছড়িয়ে পড়ে। গতকাল দুপুরে দাগনভূঞা থানা পুলিশ তাকে কোমরে রশি বেঁধে আদালত প্রাঙ্গণে নিয়ে আসলে সাংবাদিকরা প্রতিবাদ জানায়।