পেকুয়ায় প্রধানমন্ত্রীকে নিয়ে কটুক্তি করায় ইউপি চেয়ারম্যানসহ ৫জনের বিরুদ্ধে মামলা

ছবি:সিপ্লাসটিভি.নিউজ
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

 পেকুয়া প্রতিনিধিঃ কক্সবাজারের পেকুয়ায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও তার দল আওয়ামী লীগ এবং বর্তমান সরকারের মন্ত্রীদের নিয়ে কটূক্তির অভিযোগে উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোছাইন ও ইউপি চেয়ারম্যানসহ পাঁচজনের বিরুদ্ধে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলা দায়ের হয়েছে।

আজ মঙ্গলবার দুপুরে পেকুয়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল কাশেম বাদী হয়ে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে মামলাটি দায়ের করেন।

পেকুয়া উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোছাইনকে প্রধান আসামি করা হয়েছে মামলাটিতে। মামলার অপর আসামিরা হলেন- মগনামা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ইউনুস চৌধুরী, পেকুয়া উপজেলা ছাত্রদলের আহবায়ক ফরহাদ হোছাইন, মগনামা ইউনিয়ন বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক আবু তাহের হেলালি ও মগনামা ইউনিয়ন ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি আমিনুল কবির রানা।

মামলার বাদী উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবুল কাশেম বলেন, ‘গত শনিবার বিকেলে মগনামা ইউনিয়ন পরিষদ ভবনের নিচ তলায় ইউনিয়ন মহিলা দলের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সেখানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোছাইন বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, মন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ দলকে অশ্রাব্য ভাষায় গালমন্দ করেন। বক্তব্যে তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বিশ্রী ভাষায় কটূক্তি করেন। মামলার অপর আসামিদের যোগসাজশে সরকারি প্রতিষ্ঠানের ভবনে দাঁড়িয়ে তার এ ধৃষ্টতা দেশের প্রচলিত আইনে অপরাধ। তাই সরকার প্রধানকে নিয়ে কটূক্তির প্রতিবাদে এই মামলা দায়ের করেছি এবং তিনি তাদের দৃষ্টান্ত মুলক শাস্তি দাবি করেন।

জানা যায়, উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ইকবাল হোছাইন তার বক্তব্যে সরকার প্রধান ও আওয়ামী লীগকে নিয়ে কটুক্তি করার ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে চারিদিকে নিন্দার ঝড় উঠে। তারপর-পরই উপজেলা আওয়ামী লীগ, বিভিন্ন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ প্রতিবাদ সভা ও বিক্ষোভ করেন। বিক্ষোভ সভায় বক্তারা কটুক্তির ঘটনায় জড়িতদের দৃষ্টান্তমুলক শাস্তি দাবি করেন।

এ বিষয়ে পেকুয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ফরহাদ আলী বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও মন্ত্রীদের দিয়ে কটূক্তি করার অভিযোগে থানায় একটি ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে এজাহার দায়ের করা হয়েছে।

এজাহারটি মামলা হিসেবে নথিভুক্ত করা হয়েছে।