পাকিস্তানে জিম্মি উদ্ধারে নিরাপত্তা বাহিনীর অভিযান

ছবি: সংগৃহীত
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: পাকিস্তানের খাইবারপাখতুনখোয়া প্রদেশের একটি থানার নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর জিম্মিদশা তৈরি করা সন্দেহভাজন ৩৩ জঙ্গির সবাই সামরিক অভিযানে নিহত হয়েছে।

মঙ্গলবার প্রদেশের বান্নু শহরের ওই থানায় সেনাবাহিনীর অভিযানের সময় জঙ্গিদের গুলিতে দুই সৈন্যেরও প্রাণহানি হয় বলে দেশটির প্রতিরক্ষামন্ত্রী খাজা আসিফ জানিয়েছেন।

তিনি বলেন, নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গিগোষ্ঠী তেহরিক-ই-তালেবান পাকিস্তানের (টিটিপি) ‘সব সন্ত্রাসী’; যারা বান্নুর কাউন্টার-টেরোরিজম ডিপার্টমেন্ট (সিটিডি) ভবনে জিম্মিদশা তৈরি করেছিল, তাদের সবাই সামরিক অভিযানে নিহত হয়েছে।

গত রোববার দেশটির নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গিগোষ্ঠী তেহরিক-ই-তালেবান পাকিস্তানের (টিটিপি) সদস্যরা বান্নুর কাউন্টার-টেরোরিজম ডিপার্টমেন্টের ভবনের দখল নেয়। পরে সেখানে দায়িত্বরত আইনশৃঙ্খলাবাহিনীর সদস্যদের জিম্মি করে তারা। আফগানিস্তানে নিরাপদে চলে যাওয়ার সুযোগ দাবিতে এই জিম্মিদশা তৈরি করে টিটিপির সদস্যরা।

খাজা আসিফ বলেন, মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১২টার সময় স্পেশাল সার্ভিস গ্রুপ বিশেষ অভিযান শুরু করেছিল। এই অভিযানে সব জঙ্গি নিহত হয়েছে। দুপুর আড়াইটার মধ্যে পুরো সিটিডি ভবন জঙ্গিমুক্ত করা হয়েছে।

পাকিস্তানের প্রতিরক্ষামন্ত্রী বলেন, সেনাবাহিনীর স্পেশাল সার্ভিস গ্রুপের (এসএসজি) একটি ইউনিট সেখানে অভিযান পরিচালনা করেছে। এতে এসএসজির ১০-১৫ জন কমান্ডো আহত হয়েছেন এবং মারা গেছেন দু’জন।