নতুন বাংলাদেশের পুরনো পরিণতি!

ছবি: সংগৃহীত
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: পরিবর্তনের হাওয়া লাগলো বাংলাদেশের টি-টোয়েন্টি দলে, বদলে গেল চেহারা। সিনিয়রদের বসিয়ে গড়া হলো তারুণ্যে ঠাসা দল। তাতে আলোর ঝলকানির দেখা মিললো, জাগলো নতুন আশা। সে আশা অবশ্য প্রথম মিশনেই মিলিয়ে যেতে সময় লাগলো না ধারহীন বোলিংয়ে। এরপরও বিশাল লক্ষ্যে বুক চিতিয়ে লড়লো নতুন বাংলাদেশ, বেশ কিছুক্ষণ চললো আশা-নিরাশার দোলাচল। কিন্তু শেষটা হলো পুরনো বাংলাদেশের মতোই। দারুণ লড়াই করেও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে হেরে গেল বাংলাদেশ।

শনিবার (৩০ জুলােই) হারারে স্পোর্টস ক্লাবে সিরিজের প্রথম টি-টোয়েন্টিতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ১৭ রানে হেরে গেছে বাংলাদেশ। উত্তেজনা ছড়ানো এই ম্যাচে লিটন কুমার দাস, এনামুল হক বিজয়, নাজমুল হোসেন শান্তর পর শেষ দিকে নেমে নেতার মতোই খেলেন টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক নুরুল হাসান সোহান। কিন্তু নেতা হিসেবে প্রথম মিশনে দলকে শেষ পর্যন্ত জয় এনে দিতে পারেননি তিনি। ব্যাট হাতে তাণ্ডব চালিয়েও ব্যবধান ঘোচাতে পারেননি উইকেটরক্ষক এই ব্যাটসম্যান।

টস জিতে আগে ব্যাটিং করতে নামে জিম্বাবুয়ে। শুরুটা ভালো না হলেও দলকে চাপ বুঝতে দেননি দুই হাফ সেঞ্চুরিয়ান ওয়েসলে মাধেভেরে ও সিকান্দার রাজা। মাধেভেরে মারকুটে ব্যোটিং ছাপিয়ে তণ্ডব চালান রাজা। শন উইলিয়ামসও রাখেন অবদান। তাদের ব্যাটে ৩ উইকেটে ২০৫ রানের বিশাল সংগ্রহ গড়ে জিম্বাবুয়ে। জবাবে লিটন, বিজয় ও শান্তর ব্যাটে এগোতে থাকা বাংলাদেশ শেষ দিকে লড়ে সোহানের ব্যাটে। কিন্তু ১৭ রানের ব্যবধান থেকেই যায়, ৬ উইকেটে বাংলাদেশের ইনিংস শেষ হয় ১৮৮ রানে।

লক্ষ্য তাড়ায় নেমে শুরুতেই ওপেনার মুনিম শাহরিয়ারকে হারিয়ে বসে বাংলাদেশ দল। ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারে ব্যর্থতার বৃত্তে ঘুরপাক খাওয়া এই তরুণ পয়েন্টে ক্যাচ দেন। ৮ বলে ৪ রান করেন তিনি। সেই ধাক্কা কাটিয়ে লিটন দাস আর এনামুল হক বিজয়ের ব্যাটে পাওয়ার-প্লের ৬ ওভারে ৬০ রান তোলে সফরকারীরা। তবে এই দুইজন তালগোল পাকিয়ে বসেন ইনিংসের সপ্তম ওভারে।

উইলিয়ামসের বলে শর্ট ফাইন লেগে সহজ ক্যাচ দেন লিটন। কিন্তু উদযাপন করতে গিয়ে ফেলে দেন এনগারাভা। লিটন না বুঝে হাঁটা দেন ড্রেসিংরুমের দিকে। এদিকে নন স্ট্রাইক প্রান্তে উইলিয়ামসকে বল পাঠিয়ে দেন এনগারাভা। সঙ্গে সঙ্গে উইকেট ভেঙে দেন উইলিয়ামস। নানা নাটকীয়তার পর আউট দেন টিভি আম্পায়ার। নিজের ভুলে রানআউটের আক্ষেপ নিয়ে সাজঘরে ফেরেন লিটন। ৬ চারে ১৯ বলে ৩২ রান করে ফেরেন তিনি।

টি-টোয়েন্টি খেলতে নামা বিজয়ই যেন এদিন দলকে ডুবিয়ে দিলেন! %