৬৮ তে বয়স, হজের পর চলচ্চিত্রে ফেরেননি ডলি জহুর

ছবি: সংগৃহীত
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: এই প্রজন্মের দর্শকদের কাছে তিনি পর্দার মা হিসেবেই পরিচিত। চলচ্চিত্র কিংবা নাটকে মা হিসেবে সাবলীল অভিনয়ে দিয়ে তিনি অসংখ্য দর্শকদের হৃদয় জয় করেছেন। তিনি ডলি জহুর। আজ তার জন্মদিন। ৬৮ বছর বয়সে পা দিলেন এই অভিনেত্রী।

এক সময়ের পর্দায় দাপিয়ে বেড়ানো এই অভিনেত্রীকে এখন খুব একটা দেখা যায় না। পরিবারের সঙ্গেই সময় কাটান বেশি। একমাত্র ছেলে থাকে অস্ট্রেলিয়াতে সেখানেই বেশি থাকা হয় তার। তবে এবার দেশে থাকায় ঈদের বেশ কিছু নাটকে দেখা গেছে তাকে। এর মধ্যে রয়েছে  সাত পর্বের ‘ড্রিম ট্যারেস’, ‘আমার আপনজন’।

নাটকে দেখা গেলেও সিনেমায় নেই ডলি জহুর। অথচ সিনেমার মা হিসেবেই তাকে সবাই চেনেন। কেনো সিনেমায় নেই তিনি? উত্তরে এই অভিনেত্রী জানান, ‘ এখন অভিনয় করার মতো তেমন বয়সও নেই। তবে নাটকের শুটিংয়ে অল্প দিন লাগে। সিনেমাতে তো অনেক দিন শিডিউল দিতে হয় তাই করা হয় না।’

পাশাপাশি আরও একটা বিষয় জানালেন তিনি। চলচ্চিত্রে অভিনয় অনেকদিন আগে থেকেই কমিয়ে দেই। পরে ২০১২ সালে হজ করার পর একেবারেই যেনো চলচ্চিত্রে আর অভিনয় করা হয়নি।

কিন্তু অভিনয় ছাড়া থাকতে পারেন না তিনি। তাই দেশে থাকলে উৎসব কেন্দ্রিক নির্মিত নাটকে অভিনয় করেন বলেই জানালেন।

ডলি জহুর ক্যারিয়ারে কাজের স্বীকৃতিস্বরূপ দুইবার পেয়েছেন জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার। ১৯৯২ সালে হুমায়ূন আহমেদের কাহিনি, সংলাপ ও চিত্রনাট্য নিয়ে মোস্তাফিজুর রহমানের পরিচালনায় পূর্ণদৈর্ঘ্য চলচ্চিত্র ‘শঙ্খনীল কারাগার’ সিনেমার জন্য শ্রেষ্ঠ অভিনেত্রীর জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার পান। পরে ২০০৬ সালে কাজী মোরশেদ পরিচালিত ‘ঘানি’ সিনেমায় অভিনয় করে পার্শ্বচরিত্রের অভিনেত্রী হিসেবে পুরস্কার জয় করেন। এ ছাড়া একাধিকবার বাচসাসসহ নানা পুরস্কারে ভূষিত হয়েছেন তিনি।