হাজী সেলিমের পদ ‘এফেক্টেড’ হবে না: আইনমন্ত্রী

ছবি: সংগৃহীত
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: দুর্নীতির দায়ে দণ্ডিত সংসদ সদস্য হাজী সেলিম প্রসঙ্গে আইন, বিচার ও সংসদবিষয়ক মন্ত্রী আনিসুল হক বলেছেন, “যতক্ষণ পর্যন্ত আপিল বিভাগে হাজী সেলিমের বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত না হবে, ততক্ষণ পর্যন্ত তার সংসদ সদস্য পদ ‘এফেক্টেড’ হবে না।” রাজধানীর বিচার প্রশাসন প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটে চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট/চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেটদের জন্য আয়োজিত ১৪৫তম রিফ্রেসার কোর্সের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে রবিবার (২৯ মে) সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এ কথা বলেন।

ফৌজদারি মামলায় দণ্ডপ্রাপ্ত সংসদ সদস্য হাজী সেলিমের সংসদ সদস্য পদে থাকার সুযোগ আছে কি না, সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, এ ব্যাপারে সুপ্রিম কোর্টের দু-তিনটি রায় আছে। হাজী সেলিম এই মামলায় দণ্ডের বিষয়ে আপিল বিভাগে আপিল করেছেন। আমার জানা মতে, যতক্ষণ পর্যন্ত এই আপিলের চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত না হবে, ততক্ষণ পর্যন্ত সংসদ সদস্য পদ ‘এফেক্টেড’ হয় না। এটাই রায়ে আছে।

মন্ত্রী বলেন, ডাটা সুরক্ষা আইন প্রণয়নের ক্ষেত্রে স্টেকহোল্ডারদের যৌক্তিক পরামর্শ অবশ্যই গ্রহণ করা হবে। তবে কোনো অযৌক্তিক পরামর্শ গ্রহণ করা হবে না। আইনমন্ত্রী জানান, ডাটা সুরক্ষা আইনের খসড়া চূড়ান্ত করার আগে সংবাদ মাধ্যমের প্রতিনিধি, ব্যবসায়িক প্রতিনিধিসহ অন্য স্টেকহোল্ডারদের সঙ্গে বৈঠক করে আলোচনা করা হবে। এর আগে তিনি জুন মাসের এক তারিখে আইসিটি প্রতিমন্ত্রীর সঙ্গে বৈঠক করবেন। আনিসুল হক বলেন, সবার কাছে গ্রহণযোগ্য এবং যে উদ্দেশ্যে এটি প্রণয়ন করা হচ্ছে, সেই উদ্দেশ্য যাতে সাধিত হয়, সেই আইন করা হবে ইনশাল্লাহ।

তিনি বলেন, ২০০৯ সালের পূর্বে বিচারক ছিলেন মাত্র সাত থেকে আটশ। এখন এ সংখ্যা ১৯০০’র উপরে। এ কয় বছরে ১ হাজার ২২৫ জন বিচারক নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। অবকাঠামো নির্মাণ করা হয়েছে। বিচারকদের যানবাহন সমস্যা সমাধানের পথে। শিগগির তাদের জন্য জেলা পর্যায়ে বাসস্থানের ব্যবস্থা করা হবে। ডিজিটালাইজেশন করা হচ্ছে। করোনার অতিমারির মধ্যে অধ্যাদেশ জারি করে ভার্চুয়াল আদালত পরিচালনা করা হয়েছে। বিচার প্রশাসন প্রশিক্ষণ ইনস্টিটিউটের মহাপরিচালক বিচারপতি নাজমুন আরা সুলতানার সভাপতিত্বে ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে আইন ও বিচার বিভাগের সচিব মো. গোলাম সারওয়ারও বক্তব্য রাখেন।