সীতাকুণ্ডে মহিষ লুকিয়ে রাখায় জরিমানা

ঘূর্ণিঝড় সিত্রাংয়ের প্রভাবে প্রবল জোয়ারের পানিতে ভাসানচর থেকে সীতাকুণ্ডে ভেসে আসা ১৯১ টি মহিষ
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

কামরুল ইসলাম দুলু: ঘূর্ণিঝড় সিত্রাংয়ের প্রভাবে প্রবল জোয়ারের পানিতে ভাসানচর থেকে সীতাকুণ্ডে ভেসে আসা ১৯১ টি মহিষ ইতোমধ্যে প্রকৃত মালিকদের কাছে হস্তান্তর করেছে উপজেলা প্রশাসন।

মহিষগুলো সীতাকুণ্ডের বিভিন্ন ইউনিয়নে আসার পর থেকে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শাহাদাত হোসেন ছিলেন বেশ তৎপর। যার ফলে প্রত্যেক মালিক মহিষগুলো ফেরত পেয়েছেন। এরপরও কিছু দুষ্কৃতকারী প্রশাসনের অগোচরে মহিষ ‘চুরি’ করে রেখে দেয়। তবে তা হজম করতে পারেনি। এমন গোপন সংবাদে লুকিয়ে রাখা দুটি মহিষ বুধবার  রাতে অভিযান চালিয়ে উদ্ধার করা হয়।

এ সময় দুজনকে আটক করেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. শাহাদাত হোসেন। পরে ভ্রাম্যমাণ আদালত বসিয়ে তাদের ৩০ হাজার টাকা করে জরিমানা করেন তিনি। উপজেলার সোনাইছড়ি ইউনিয়নের জোড়ামতল এলাকায় পৃথকভাবে এ অভিযান চালিয়ে শিকদার শাজাহান ও তার স্ত্রী এবং মাবিয়া শিপইয়ার্ড এর কেয়ারটেকার আবু সালেককে আটক করা হয়। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. শাহাদাত হোসেন জানান, সম্প্রতি সিত্রাংয়ের সময় জোয়ারে সীতাকুন্ডের উপকূলে ভেসে আসা এ পর্যন্ত ১৯১টি মহিষ প্রকৃত মালিকদের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।