বড় উঠানে হাতির আক্রমনে আহত পরিবারকে মোকাম্মেল হক খানের নগদ অর্থ সহায়তা প্রদান

কর্ণফুলী উপজেলা বড় উঠানে হাতির আক্রমনে আহত দুঃস্থ পরিবারকে নগদ অর্থ সহায়তা প্রদান করেন“সৈয়দা হোসনে আরা-আলম খান ফাউন্ডেশন” এর চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মোকাম্মেল হক খান।
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: “সৈয়দা হোসনে আরা-আলম খান ফাউন্ডেশন” এর চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মোকাম্মেল হক খান কর্ণফুলী উপজেলা বড় উঠানে হাতির আক্রমনে আহত দুঃস্থ পরিবারের মাঝে নগদ অর্থ সহায়তা প্রদান করেন।

আজ (১২ নভেম্বর,শনিবার) কর্ণফুলী উপজেলা বড় উঠানে হাতির আক্রমনে আহত দুঃস্থ পরিবারের বড় সন্তান মোঃ জাবেদ এর হাতে অর্থ সহায়তা তুলে দেন ফাউন্ডেশন এর চেয়ারম্যান ও বৃক্ষ রোপনে প্রধানমন্ত্রী’র জাতীয় পুরস্কারপ্রাপ্ত মোহাম্মদ মোকাম্মেল হক খান।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন ফাউন্ডেশন এর সচিব মোঃ রেজাউল হক খান ও মোঃ কায়সারসহ অন্যান্য নেত্রীবৃন্দ।

গত ০৮ নভেম্বর ২০২২ইং তারিখ কর্ণফুলী উপজেলার বড়উঠান, খোট্টাপাড়া এলাকায় বসতঘরে বনহাতি আক্রমন করে মোহাম্মদ করিমের সহধর্মিনী জারিয়া বেগমকে  গুরুতর আহত করে।

বর্তমানে তিনি চট্টগ্রাম মেডিকেলে ৫ম তলা ২৭ নং ওয়ার্ড সিট নং-৩২-এ চিকিৎসারত অবস্থায় আছে।

ফাউন্ডেশন এর চেয়ারম্যান সার্জারী বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ডাঃ এরশাদ আলম এর সাথে আলোচনা করে চিকিৎসার খোঁজখবর নেন। তিনি উন্নত চিকিৎসা ব্যবস্থা করার নিমিত্তে চমেক এর উপ-পরিচালক ডাঃ অং সুই প্রু মারমার সাথে সাক্ষাৎ করেন এবং চিকিৎসার সকল ব্যবস্থা সুনিশ্চিত করার আহ্বান জানান।

এসময় চমেক এর প্রধান সহকারী নাজিম উদ্দিন উপস্থিত ছিলেন। চমেক এর উপ-পরিচালক চিকিৎসার  স্বার্থে যা যা করণীয় তা ব্যবস্থা করার আশ্বাস প্রদান করেন। ফাউন্ডেশন চেয়ারম্যান সমাজের বিত্তবানদের গরীব অসহায়দের চিকিৎসাসহ আর্থিক সহযোগিতার জন্য এগিয়ে আসার আহবান জানান।

উল্লেখ, ০৭ মার্চ ২০১৮ ইং ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডে নিঃস্ব হওয়া দুই পরিবারের এ পরিবারকে ও বাড়ি বানাতে ফাউন্ডেশন’র চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মোকাম্মেল হক খান ঢেউটিন বিতরণ করেন।

হাতির আক্রমন থেকে সুরক্ষা নিশ্চিতে ফাউন্ডেশন’র সচিব মোঃ রেজাউল হক খানকে প্রধান করে পাঁচ সদস্যের কমিটি গঠন করা হয়। কমিটির বাকিরা হলেন, মোঃ মুনছুরুল হক খান, মাওলানা গাজী মোঃ ইছহাক, জহির উদ্দিন টিপু, মোঃ কায়সার ও নুরুল আবছার। সার্বিক তত্ত্বাবধানে থাকবেন  ফাউন্ডেশন এর চেয়ারম্যান মোহাম্মদ মোকাম্মেল হক খান।