ব্যাংকের বাতিল নোটের টুকরো নিয়ে বগুড়ায় তুলকালাম কাণ্ড

CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

শাজাহানপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আবুল কালাম আজাদ জানান, উপজেলার খাড়ুয়া ব্রিজ এলাকার চান্দাই গ্রামে রাস্তার পাশে কুচি কুচি করে কাটা টাকার টুকরো পড়ে থাকার খবরে স্থানীয়রা সেখানে ভিড় জমায়। সাধারণ মানুষের মধ্যে শুরু হয় নানা জল্পনা-কল্পনা।

কেউ ধরা পড়ার ভয়ে এভাবে অবৈধ টাকা নষ্ট করেছে কি না- সেই প্রশ্নও ঘুরতে থাকে সাধারণের কথায়। পরে সেখানে পুলিশ গিয়ে জানতে পারে, সেগুলো বাংলাদেশ ব্যাংকের ফেলে দেওয়া বাতিল টাকার নোট।

বগুড়ায় বাংলাদেশ ব্যাংকের সহকারী পরিচালক জগন্নাথ ঘোষ  বলেন, নষ্ট হয়ে যাওয়া বা বাতিল টাকার নোট কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নিয়ম অনুযায়ী নষ্ট করে ফেলা হয়।

“আগে এসব নোট পুড়িয়ে ফেলা হত। কিন্তু পরিবেশ অধিদপ্তর বলেছে, তাতে পরিবেশ দূষণ ঘটে। তাই এখন ১০০ থেকে ১০০০ টাকার নোট মেশিনে কুচি কুচি করে কেটে ফেলা হয়। পরে আমরা তা পৌরসভার মাধ্যমে ফেলে দেওয়ার ব্যবস্থা করি।”

বাংলাদেশ ব্যাংকের এই কর্মকর্তা জানান, তাদের কাছে ১৮০০ বস্তা বাতিল নোটের টুকরো জমা আছে। তার মধ্যে ২৪০ বস্তা গত রোববার সন্ধ্যায় পৌরসভার ট্রাকে করে খাড়ুয়া ব্রিজের কাছে ফেলা হয়। এর মধ্যে ১০০, ৫০০ ও ১০০০ টাকার বাতিল নোট ছিল।

বগুড়া পৌরসভার গাড়ি চালক মাসুদ জানান, তিনি এবং আতাউল ও শহীদুল নামে আরও দুই চলক মিলে তিনটি ট্রাকে করে বাতিল টাকার বস্তা ওই এলাকায় ফেলে এসেছেন।

বাড়ি ওই এলাকায় হওয়ায় তারা বস্তা ফেলার জন্য ওই এলাকা বেছে নিয়েছেন বলে জানান।