বিএম ডিপোতে নিহত ১৪ জনের পরিবার পেলো ১ কোটি ৪০ লাখ টাকা

ট্টগ্রামের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মু. মাহমুদ উল্লাহ মারুফ
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

নিজস্ব প্রতিবেদক: সীতাকুণ্ডের বিএম ডিপোতে অগ্নিকাণ্ডে নিহত আরও ১৪ জনের পরিবারকে ১ কোটি ৪০ লাখ টাকার ক্ষতিপূরণের চেক হস্তান্তর করা হয়েছে।

বুধবার (২৪ আগস্ট) বিকেলে জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে চট্টগ্রামের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মু. মাহমুদ উল্লাহ মারুফ এসব চেক নিহতদের পরিবারের সদস্যদের হাতে তুলে দেন।

দুই দফায় এ পর্যন্ত ৪০ জন নিহত ও ৭৯ জন আহতকে ক্ষতিপূরণের চেক দিয়েছে ডিপো কর্তৃপক্ষ। ডিএনএ পরীক্ষার রিপোর্ট আসলে বাকি নিহতদের পরিবারেও চেক দেওয়া হবে।

এর আগে গত ৪ জুন বিএম ডিপোতে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় নিহত ও আহতদের পরিবারকে আর্থিক সহায়তার আশ্বাস দিয়েছিল ডিপো কর্তৃপক্ষ। তাঁরা নিহতদের পরিবারকে ১০ লাখ টাকা, ফায়ার সার্ভিসের নিহতদের ১৫ লাখ টাকা ও আহতদের পরিবারকে চার থেকে ছয় লাখ টাকা করে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছিল। তারই ধারাবাহিকতায় এবার দ্বিতীয় দফা চেক বিতরণ করা হয়েছে।

চট্টগ্রামের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মু. মাহমুদ উল্লাহ মারুফ বলেন, ঘটনার পর থেকে প্রশাসন ও ব্যবসায়ী প্রতিনিধিরা মিলে বারবার চেষ্টা করেছি কীভাবে এই ক্ষতি কেটে ওঠা যায়। কিন্তু অর্থ দিয়ে কারোও জানমালের ক্ষতিপূরণ দেওয়া সম্ভব নয়। নিহতের পরিবার যাতে একটু মাথা তুলে দাঁড়াতে পারে সেজন্য এই অর্থ সহায়তা দেওয়া হচ্ছে। আশার কথা বিএম ডিপো কর্তৃপক্ষ হতাহতদের পরিবারের পাশে দাঁড়ানোর যে প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল তা রক্ষা করেছে। তাঁরা শুরু থেকেই মানুষ, ব্যবসায়ী ও সমাজের অংশ হিসেবে পরিবারগুলোর পাশে থাকার চেষ্টা করছে।

হতাহতের পরিবারগুলো যে এতবড় দুর্যোগে ধৈর্য ধরেছেন তা স্মরণীয় হয়ে থাকবে। আমরা এসব পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাই।

চেক বিতরণকালে উপস্থিত ছিলেন স্মার্ট গ্রুপের ম্যানেজার (এইচআর ও কমপ্লায়েন্স) মো. সাকিব, ম্যানেজার (মার্চেন্ডাইজার) মো. আউয়াল হোসেন সৈকত, এক্সিকিউটিভ (অ্যাকাউন্ট) মো. তৈয়ব হিরু, সহকারী ব্যবস্থাপক (এইচআর) মো. ইমরান হোসেন প্রমুখ।