বাংলাদেশে সেবা দিতে চায় ব্যাংকক হাসপাতাল

ছবি: সংগৃহীত
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: হৃদরোগ ও ক্যানসারের মত জটিল রোগের চিকিৎসায় প্রতিবছর বহু বাংলাদেশি ভারতের পাশাপাশি থাইল্যান্ডে যাচ্ছে। থাইল্যান্ডগামী রোগীদের বেশিরভাগই যাচ্ছে ব্যাংকক হাসপাতালে। এ জন্য বাংলাদেশে শাখা খুলে এসব সেবা দিতে আগ্রহী প্রতিষ্ঠানটি।

শনিবার রাজধানীর ডেইলি স্টার ভবনে মিট দ্য প্রেস অনুষ্ঠানে এই উদ্যোগের কথা জানান ব্যাংকক হাসপাতালের ইন্টারনাল মেডিসিন বিশেষজ্ঞ উপদেষ্টা ডা. শক্তি রঞ্জন পাল।

এ সময় তিনি বলেন, আমাদের উদ্যোগ আছে। কিন্তু গোটা বিশ্বেই গত দু-বছরে অতিমারি করোনার প্রভাব ও সাম্প্রতিক রাশিয়া-ইউক্রেন যুদ্ধের কারণে সবাই আর্থিক সংকটে, তাই সেভাবে এগিয়ে নেওয়া সম্ভব হয়নি। হয়তো আগামী বছর বিষয়টি নিয়ে কাজ করব। সরকারের সঙ্গে এখনো আলোচনা হয়নি। সরকারের সঙ্গে এগোতে গেলে দীর্ঘায়িত হবে। তাই বেসরকারিভাবে করার পরিকল্পনা আছে।

চিকিৎসায় বাংলাদেশে উন্নত প্রযুক্তি ব্যবহারের ঘাটতি আছে জানিয়ে ডা. শক্তি রঞ্জন বলেন, মেডিকেল  চিকিৎসায় প্রয়োজন অত্যাধুনিক যন্ত্র। বাংলাদেশেও অনেক ভাল প্রতিষ্ঠান আছে, তবে উন্নত প্রযুক্তির এখনো অভাব রয়েছে। বর্তমানে উন্নত টেকনোলজি, আধুনিক ডায়াগনোসিস এবং নতুন নতুন চিকিৎসা বের হচ্ছে। একটা সময় ক্যানসার হলে মৃত্যু নিশ্চিত ধরে নেওয়া হত, কিন্তু বর্তমানে উন্নত চিকিৎসায় ভাল হচ্ছে।

ব্যাংকক হসপিটাল হেডকোয়ার্টার্স (বিএইচকিউ)-এর নেতৃত্বে থাইল্যান্ড এবং প্রতিবেশি দেশগুলিতে সম্মিলিতভাবে ৪৯টি নেটওয়ার্ক হসপিটাল পরিচালিত হয়। যেথানে গুরুতর এবং জটিল অসুস্থতার জন্য বিশ্বমানের চিকিৎসা সেবা প্রদান করে আসছে।