বঙ্গবন্ধু টানেলের সমাপ্তি উদযাপন অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি যোগ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী

ছবি: সংগৃহীত
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

নিজস্ব প্রতিবেদক: কর্ণফুলী নদীর তলদেশ দিয়ে দেশের ইতিহাসে প্রথম টানেল, বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান টানেল। এর একটি টিউবের কাজ সম্পন্ন হয়েছে। এ উপলক্ষ্যে শনিবার (২৬ নভেম্বর) চট্টগ্রামের পতেঙ্গায় আয়োজন করা হয়েছে উদযাপন অনুষ্ঠানের। গণভবন থেকে ভার্চুয়ালি এতে যোগ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

প্রকল্প সংশ্লিষ্টরা জানান, টিউব দুটির মধ্যে চলাচলের ৩টি ক্রস প্যাসেজের কাজ শেষ হয়েছে। স্থাপিত হয়েছে, দুপাড়ে টোল প্লাজা। বসবে স্ক্যানার। পতেঙ্গা অংশে যানজট এড়াতেও নেয়া হয়েছে উদ্যোগ। ৩ দশমিক তিন-দুই কিলোমিটার দীর্ঘ এই নির্মাণে খরচ, প্রায় ১০ হাজার ৮শ’ কোটি টাকা।

দক্ষিণ এশিয়ায় নদীর তলদেশের প্রথম এ টানেলটি আগামী জানুয়ারিতে যান চলাচলের জন্য খুলে দেয়া হবে। টানেলটি চালু হলে চট্টগ্রাম মহানগর, চট্টগ্রাম বন্দর এবং পশ্চিম প্রান্তে অবস্থিত বিমানবন্দরের সঙ্গে একটি উন্নত ও সহজ যোগাযোগ ব্যবস্থা গড়ে উঠবে। এছাড়া পূর্বাঞ্চলের শিল্প কারখানা থেকে উৎপাদিত পণ্য ও কাঁচামাল চট্টগ্রাম বন্দর ও বিমানবন্দরে নিয়ে যেতে সময় ও খরচও কমে যাবে।

প্রসঙ্গত, ২০১৬ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং যৌথভাবে কর্ণফুলী টানেলের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন করেন। এরপর ২০১৯ সালে প্রথম টানেল টিউবের বোরিং কাজ শুরু হয়, আর দ্বিতীয় টিউবের বোরিং কাজ শুরু হয় ২০২০ সালে।