পদ্মা সেতুতে দ্বিতীয় দিন টোল আদায় প্রায় ২ কোটি টাকা

ছবি: সংগৃহীত
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: পদ্মা সেতু খোলার পর দ্বিতীয় দিনে প্রায় দুই কোটি টাকার টোল আদায় হয়েছে। এ সময় সেতুতে মোটরসাইকেল ওঠা বন্ধ হওয়ায় যানবাহনের সংখ্যা কমে গেছে এক-চতুর্থাংশ। টোলের পরিমাণ কমে এসেছে পৌনে এক কোটি টাকা।

গত শনিবার প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পদ্মা সেতু উদ্বোধন করেন। উদ্বোধনের দিন যানবাহন চলাচল বন্ধ ছিল। পরদিন রোববার সকাল ছয়টা থেকে যানবাহন চলাচল শুরু হয়। রোববার প্রথম ২৪ ঘণ্টায় ৬১ হাজার ৮৫৬টি যান চলে। গাড়ি পার হয়ে মোট টোল আদায় হয়েছিল ২ কোটি ৭৫ লাখ ১৩ হাজার ৬০০ টাকা।

প্রথম দিনে মোটরসাইকেলে সেতুতে ওঠায় মানা ছিল না। প্রতিটি মোটরসাইকেল ১০০ টাকা টোল দিয়ে চলাচল করছিল। তবে কিছু ক্ষেত্রে বিশৃঙ্খলা ও একটি দুর্ঘটনায় দুজনের মৃত্যুর পর গতকাল সোমবার সকাল ৬টা থেকে মোটরসাইকেলের সেতুতে ওঠা নিষিদ্ধ করা হয়।

সেতু কর্তৃপক্ষের হিসাব অনুযায়ী আজ মঙ্গলবার (২৮ জুন) সকাল ৬টা পর্যন্ত আগের ২৪ ঘণ্টায় ১৫ হাজার ২৭৪টি যানবাহন পার হয়েছে। এখান থেকে টোল আদায় হয়েছে ১ কোটি ৯৭ লাখ ৫৬ হাজার ৬০০ টাকা।

এ সময়ে মাওয়া প্রান্ত দিয়ে সেতুতে উঠেছে ৭ হাজার ৫৮৬টি যানবাহন। টোল আদায় হয়েছে ৯৮ লাখ ১৮ হাজার ৫০ টাকা। আর জাজিরা প্রান্ত থেকে যানবাহন উঠেছে ৭ হাজার ৬৮৮টি। টোল আদায় হয়েছে ৯৯ লাখ ৩৮ হাজার ৫৫০ টাকা।

জনসাধারণের জন্য খুলে দেওয়ার তৃতীয় দিনে পদ্মা সেতুতে যানবাহন চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে। আজ মঙ্গলবার সকাল থেকে মাওয়া টোল প্লাজায় আসামাত্র টোল পরিশোধ করে যানবাহন নিয়ে সেতু দিয়ে পদ্মা নদী পাড়ি দিচ্ছেন লোকজন। তবে সেতুতে মোটরসাইকেল পারাপার নিষিদ্ধ থাকায় এবং ফেরি না চলায় বিপাকে পড়েছেন মোটরসাইকেল আরোহীরা।

বাংলাদেশ সেতু কর্তৃপক্ষের তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী তোফাজ্জল হোসেন বলেন, সকাল থেকে খুব স্বাভাবিকভাবে যানবাহন চলাচল করছে। সেতুর মাওয়া প্রান্তে কোনো চাপ নেই। মোটরসাইকেল পারাপার বন্ধ রয়েছে।