তাজিয়া মিছিলে তরবারি আতশবাজি নিষিদ্ধ

পবিত্র আশুরা
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

নিজস্ব প্রতিবেদক: পবিত্র আশুরা উপলক্ষে আয়োজিত মিছিলে দা, ছুরি, কাঁচি, বর্শা, বল্লম, তরবারি, লাঠি ইত্যাদি বহন করা যাবে না। পাশাপাশি ফোটানো যাবে না আতশবাজি ও পটকা।

চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশ (সিএমপি) এ নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে বলে জানিয়েছেন অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিবি-দক্ষিণ ও জনসংযোগ) শাহাদত হুসেন রাসেল।

তিনি বলেন, তাজিয়া মিছিলে পাইক দলভুক্ত ব্যক্তিরা দা, ছুরি, কাঁচি, বর্শা, বল্লম, তরবারি, লাঠি ইত্যাদি নিয়ে অংশগ্রহণ করেন, যা ক্ষেত্রবিশেষে অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতির সৃষ্টি করে। এটা ধর্মপ্রাণ ও নগরবাসীর মনে আতঙ্ক, ভীতি সৃষ্টিসহ জননিরাপত্তার জন্য হুমকি। তাছাড়া মহররম মাসে পবিত্র আশুরা উপলক্ষে আতশবাজি ও পটকা ফোটানো হয়, যা ধর্মীয় ভাবগাম্ভীর্যের সঙ্গে সামঞ্জস্যপূর্ণ নয়। তাজিয়া মিছিলের শুরু থেকে শেষ সময় পর্যন্ত এ নিষেধাজ্ঞা বলবৎ থাকবে।

তিনি বলেন, মঙ্গলবার (৯ আগস্ট) বন্দরনগরীতে বিভিন্ন এলাকায় বিভিন্ন সময় তাজিয়া মিছিল বের হবে। রাতের বেলায় তাজিয়া মিছিল এবং রাস্তায় কোনো ধরনের সমাবেশ করা যাবে না। দিনের বেলায় তাজিয়া মিছিল সম্পন্ন করতে হবে। তাজিয়া মিছিলের জন্য নির্দিষ্ট রুট অবশ্যই অনুসরণ করতে হবে। এক রুটের তাজিয়া মিছিল অন্য রুটে যাওয়া বিরত থাকতে হবে। রাস্তায় যান চলাচলের প্রতি দৃষ্টি রেখে তাজিয়া মিছিল পরিচালনা করা এবং তাজিয়া মিছিল চলাকালে রাস্তায় যাতে কোনো যানজট সৃষ্টি না হয় সে দিকে লক্ষ্য রাখতে হবে।

শাহাদত হুসেন রাসেল বলেন, শোকমিছিল শুরু হওয়ার পরে পথিমধ্যে আশপাশের ছোট ছোট গলি থেকে কোনো ব্যক্তি বা ব্যক্তিবর্গ গ্রুপ আকারে বা পাইক হিসেবে যাতে প্রবেশ করতে না পারে তার ব্যবস্থা করতে হবে। তাজিয়া মিছিল চলাকালে নিরাপত্তার স্বার্থে কোনো প্রকার ব্যাগ, ব্যাগ সদৃশ্য বস্তু, টিফিন বক্স, প্রেসার কুকার, দাহ্য পদার্থ নিয়ে প্রবেশ এবং অবস্থান করা থেকে বিরত রাখতে হবে।