ছাত্রলীগ নেতা জুবায়েরের জামিন, সাহেদী দুই দিনের রিমান্ডে

ছবি: সংগৃহীত
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: ঢাকা মহানগর দক্ষিণ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি দেলোয়ার হোসেন সাহেদী এবং সাধারণ সম্পাদক জোবায়ের আহমেদের বিরুদ্ধে পুলিশের কর্তব্যকাজে বাধা দেওয়ার মামলায় জামিন মঞ্জুর করেছেন আদালত। অস্ত্র মামলায় সাহেদীর দুই দিনের রিমান্ড এবং মাদক মামলায় রিমান্ড আবেদন নামঞ্জুর হয়েছে।

শুক্রবার (২০ মে) শুনানি শেষে ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট মোহনা আলমগীরের আদালত এ আদেশ দেন।

এদিন সাহেদী ও জোবায়কে আদালতে হাজির করে সবুজবাগ থানা পুলিশ। অস্ত্র ও মাদক মামলায় সাহেদীর ৫ দিন করে ১০ দিনের রিমান্ড আবেদন করেন তদন্ত কর্মকর্তা সবুজবাগ থানার সাব-ইন্সপেক্টর রবীন্দ্রনাথ সরকার। এ দুই মামলায় সাহেদী একমাত্র আসামি।

অপরটি পুলিশের কর্তব্যকাজে বাধা দেয়ার মামলায় সাহেদী ও জোবায়েরের ৫ দিন করে রিমান্ড আবেদন করা হয়।

আসামিদের পক্ষে তাদের আইনজীবীরা রিমান্ড বাতিল চেয়ে জামিন আবেদন করেন। রাষ্ট্রপক্ষ থেকে এর বিরোধিতা করা হয়।

শুনানি শেষে আদালত পুলিশের কাজে বাধা দেওয়ার মামলায় দুই আসামির জামিনের আদেশ দেন। মাদক মামলায় সাহেদীর রিমান্ড ও জামিন আবেদন নাকচ করেন। আর অস্ত্র মামলায় সাহেদীর দুই দিনের রিমান্ডের আদেশ দেন।

এর আগে, গত ১৯ মে রাতে মাদক, অস্ত্র ও সরকারি কাজে বাধা দেওয়ার অভিযোগে দেলোয়ার হোসেন সাহেদীর বিরুদ্ধে পৃথক তিনটি মামলা করে র‌্যাব। সরকারি কাজে বাধা দেওয়ার মামলায় জোবায়ের আহামেদকেও আসামি করা হয়।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর নাম ভাঙিয়ে কিছু লোক চাঁদাবাজি করে আসছেন— এমন অভিযোগের ভিত্তিতে ১৮ মে দিনগত রাত ৩টায় রাজধানীর সবুজবাগে অভিযান চালায় র‌্যাব। এ সময় ছাত্রলীগ নেতা সাহেদীকে আটক করা হয়। এরপর সাহেদীকে নিয়ে অভিযানে নামে র‌্যাব। অভিযান শেষে র‌্যাব সদস্যরা রাস্তায় বের হলে ছাত্রলীগ নেতা জোবায়ের আহামেদের নেতৃত্বে ১৫০-২০০ জন সাঈদীকে ছিনিয়ে নেওয়ার চেষ্টা করে।