চুক্তি বাতিল করে এশিয়া কাপে অধিনায়ক সাকিব

ছবি: সংগৃহীত
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: খেলাধুলায় সাইপ্রাস ভিত্তিক বেটিং (বাজি) সাইট বেটউইনার স্পোর্টস বেটিং অ্যান্ড ক্যাসিনোর সহ-প্রতিষ্ঠান বেটউইনার নিউজের দূত হয়ে কিছুদিন আগে চুক্তি করেন সাকিব আল হাসান। বাংলাদেশের আইনে বেটিং নিষিদ্ধ, এ জন্য ওই ধরনের কোনো প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি করাও আইনবিরোধী। সে কারণেই সাকিবকে ওই প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি বাতিল করতে বলে বিসিবি। চুক্তি বাতিল না করলে দেশের ক্রিকেটে আজীবন নিষিদ্ধেরও ইঙ্গিত দেন বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। সাকিব শুরুতে সেই নির্দেশ না মানতে চাইলেও পরে বিসিবি হার্ডলাইনে যাওয়ার ঘোষণা দেওয়ার পর সিদ্ধান্ত বদলেছেন।

বেটউইনার নিউজের সঙ্গে চুক্তি বাতিল করেছেন সাকিব আল হাসান। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের সব পোস্টও নামিয়ে ফেলার বিষয়ে লিখিত প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন বিসিবিকে। গতকাল বিকেলে বিসিবিকে ই-মেইলে চুক্তি বাতিলের বিষয়টি নিশ্চিত করেন তিনি। সকালেই বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপনকে মৌখিকভাবে নিজের সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছিলেন সাকিব। যদিও বাঁহাতি এ অলরাউন্ডারের মৌখিক প্রতিশ্রুতিতে সন্তুষ্ট ছিলেন না পাপন। তিনি চেয়েছিলেন লিখিত। সেটা হাতে পেতে দেরি হওয়ায় দুপুরে বেক্সিমকো অফিসে গুরুত্বপূর্ণ পরিচালকদের সঙ্গে বৈঠক শেষে পাপন মিডিয়াকে জানান, চুক্তি বাতিল না করলে ক্রিকেট থেকে আজীবন নিষিদ্ধ করা হবে দেশসেরা অলরাউন্ডারকে। সন্ধ্যায় চুক্তি বাতিলের চিঠি দেওয়ায় সাকিবকে এশিয়া কাপের দলে নিতে কোনো বাধা থাকল না। এশিয়া কাপ দিয়ে টি২০ দলের নেতৃত্বেও ফিরছেন তিনি।

বেটউইনার নিউজের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর হিসেবে কয়েকদিন আগে একটি ছবি পোস্ট করেছিলেন সাকিব। পোস্টটি ফেসবুকে ভাইরাল হওয়ার পর সংবাদমাধ্যমে সমালোচনার ঝড় ওঠে। ৪ আগস্ট বিসিবি পরিচালনা পর্ষদের সভা শেষে এ ইস্যুতে পাপনের কাছে জানতে চাওয়া হলে সাকিবের সঙ্গে যোগাযোগ করে প্রকৃত ঘটনা জানার নির্দেশনা দিয়েছিলেন। বেটউইনার নিউজের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসাডর হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত হওয়ার পর বিসিবি থেকে চিঠি দিয়ে চুক্তি বাতিল করতে বলা হয় সাকিবকে। ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের চেয়ারম্যান জালাল ইউনুস ফোনে ৩৫ বছর বয়সী এ ক্রিকেটারের সঙ্গে একাধিকবার যোগাযোগ করলেও ১০ কোটি টাকার চুক্তি বহাল রাখার ব্যাপারে অটল ছিলেন। সাকিব অনড় থাকায় বিসিবিও কঠোর অবস্থান নেয়। সভাপতি পাপন বলেন, ‘আর সাকিব ইস্যুতে দ্বিতীয় কোনো চিন্তা করার সুযোগ নেই। বিসিবি প্রথম দিকের মতো অটলই আছে। এসব ইস্যুতে জিরো টলারেন্স। কোনোভাবেই বিসিবি এগুলো গ্রহণ করবে না। যে যেভাবেই এটাকে ব্যাখ্যা দিক বা না দিক।’

৪ আগস্ট সাকিবের সঙ্গে হোয়াটসঅ্যাপে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেছিলেন, বেটউইনার নিউজের সঙ্গে চুক্তির ভবিষ্যৎ নিয়ে ভাববেন তিনি। বিসিবির কাছ থেকে চিঠি পাওয়ার পর জানিয়েছিলেন, বিষয়টি নিয়ে গ্রহণযোগ্য একটি সমাধানের পথ খুঁজছেন। চুক্তি বাতিল করেছেন কিনা গতকাল সকালে জানতে চাওয়া হলে এসএমএস দিয়ে গণমাধ্যমকে সাকিব নিশ্চিত করেন ‘সব ঠিক হয়ে গেছে।’ বিসিবিকে লিখিত দেওয়ার বিষয়টিও বিকেলে নিশ্চিত করেন সমকালকে। সন্ধ্যায় জালাল ইউনুস জানান, সাকিবের কাছ থেকে চিঠি পেয়েছেন তাঁরা। তিনি বলেন, ‘সাকিবের চিঠি পেয়েছি। সে বলেছে চুক্তি বাতিল করবে। বেটউইনার নিউজ সামাজিক মাধ্যমে যত পোস্ট দিয়েছিল সেগুলোও সরিয়ে ফেলা হবে।’

সাকিব চুক্তি বাতিল করায় এশিয়া কাপের দল ঘোষণা হবে আজ। রাতে দেশে ফিরে কাল দুপুরে পাপনের সঙ্গে বৈঠক করবেন। যদিও বিসিবির একটি সূত্র জানিয়েছে, বোর্ড সভাপতির সঙ্গে নিয়মিতই যোগাযোগ ছিল সাকিবের। কিন্তু চুক্তি থেকে বেরিয়ে আসতে গেলে কিছু জটিলতা তৈরি হওয়ায় সিদ্ধান্তহীনতায় ছিলেন সাকিব। পরিচালনা পরিষদের গতকালের সভায় উপস্থিত ছিলেন এমন একজন পরিচালক বলেন, ‘সাকিব আসলে বুঝতে পারেনি বিষয়টি এতদূর গড়াবে। সে ভেবেছিল বেটউইনার নিউজের অ্যাম্বাসাডর হলে সমস্যা নেই। আসলে তার জানা ছিল না আমাদের দেশের আইনে ক্যাসিনো কোম্পানির কোনো অঙ্গ প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি করা যায় না। বিসিবি সভাপতির কাছে সবকিছুই খুলে বলেছে। ও ভালো ছেলে, কোনো সমস্যা নেই।’ যুক্তরাষ্ট্র থেকে আজ রাতে দেশে ফেরার কথা সাকিবের। সবকিছু ঠিক থাকলে আগামীকাল বিসিবি সভাপতির সঙ্গে দেখা করে কথা বলবেন টি২০ অধিনায়ক।