অকেজো দুই ডেমু ট্রেন সচল, সাফল্য বাংলাদেশি প্রকৌশলীদের

ছবি: সংগৃহীত
CPLUSTV
CTG NEWS
CPLUSTV
শেয়ার করুন

সিপ্লাস ডেস্ক: দিনাজপুরের পার্বতীপুরে অকেজো পড়ে থাকা দু’টি ডেমু ট্রেন সচল করেছেন বাংলাদেশি প্রকৌশলীরা। চীনা প্রযুক্তি বাদ দিয়ে এতে ব্যবহার করেছেন দেশি প্রযুক্তি। এরই মধ্যে পার্বতীপুর রেলওয়ে জংশন থেকে পঞ্চগড়ে একটি ডেমু ট্রেন পরীক্ষামূলকভাবে চলাচল করেছে। এ সময় ট্রেনটির গতি ছিল ঘণ্টায় ৭২ কিলোমিটার।

২০১৩ সালে চীনা একটি প্রতিষ্ঠান থেকে ৬৪৫ কোটি টাকা ব্যয়ে ২০টি ডেমু ট্রেন আমদানি করে বাংলাদেশ। সফটওয়ার নিয়ন্ত্রিত ট্রেনগুলো ৯ বছরের মাথায় অচল হয়ে যায়। সফটওয়্যার হস্তান্তর না করায় ট্রেনগুলো চালু করতে বার বার ধরণা দিতে হয় চীনা প্রকৌশলীদের কাছে। এতেও মিলছিল না সমাধান।

এমন পরিস্থিতিতে পার্বতীপুরের রেলওয়ে কেন্দ্রীয় লোকো মোটিভ কারখানায় পড়ে থাকা ৫টির মধ্যে ২টি ট্রেন সচল করেছেন দেশের ৪ প্রকৌশলী। সফটওয়ার বাদ দিয়ে তারা যোগ করেন নতুন প্রযুক্তি। ডেমু ট্রেনের মডিউল পাল্টিয়ে বসান দেশে তৈরি কন্ট্রোলার ইনভার্টার ও স্বল্প দামের টেকসই ব্যাটারি।

বাকি ট্রেনগুলোও একইভাবে সচল করতে চায় ঐ প্রকৌশলী দল। সচল হওয়া ট্রেন দুটি শিগগিরই রেল বহরে যোগ করার কথা জানান রেল সংশ্লিষ্টরা।

প্রকৌশলী দলের দাবি, তাদের প্রযুক্তি ব্যবহারে ১০০ কোটি টাকা ব্যয়ে সবগুলো ডেমু ট্রেন চালু করা যাবে; যা চীনা প্রতিষ্ঠানের সম্ভাব্য খরচের ৬ ভাগের মাত্র এক ভাগ।